শ্বাসনালী

শ্বাসনালী বা ট্রাকিয়া, গলবিল এবং স্বরযন্ত্রকে ফুসফুসে সংযোগকারী অংশ,যা বায়ু পরিবহন করে এবং প্রাণীর শ্বসনে সাহায্য করে।

শ্বাসনালী
(Trachea)
পরিবহনের রাস্তা
স্বরযন্ত্রের ভিতরের ল্যারিংগোস্কপিক চিত্র,নিচে শ্বাসনালী
বিস্তারিত
যার অংশশ্বাস পথ
ধমনীইনফেরিয়র থাইরয়েড ধমনী
শিরাব্রাকিওসেফালিক শিরা, অ্যাজাইগাস শিরা অতিরিক্ত হেমিঅ্যাজাইগাস শিরা
শনাক্তকারী
MeSHA04.889
টিএA06.3.01.001
এফএমএFMA:7394
শারীরস্থান পরিভাষা

গঠন

মানবদেহে ট্রাকিয়া অন্ননালীর সামনে,ঊর্ধমুখী অ্যাওর্টিক আর্চের পিছনে থাকে,কিন্তু বাম প্রধান ব্রঙ্কাস নিম্নমুখী অ্যাওর্টিক আর্চের সামনে থাকে

মানুষের শ্বাসনালীর ব্যাসার্ধ প্রায় ২৫ মিলিমিটার এবং দৈর্ঘে প্রায় ১০-১৬ সেন্টিমিটার।এটি ৬ষ্ঠ গ্রীবাদেশীয় কশেরুকা বরাবর স্বরযন্ত্রের নিচে শেষ হয় এবং ৫ম±২ বক্ষীয় কশেরুকা বরাবর প্রাথমিক ব্রঙ্কাইয়ে বিভাজিত হয়।শ্বাসনালীর উপরে ক্রিকয়েড তরুণাস্থি থাকে।এটিই শ্বাসনালীর একমাত্র পরিপূর্ণ তরুণাস্থি।

শ্বাসনালীতে ১৫ থেকে ২০টি অপূর্ণ C আকৃতির তরুণাস্থির রিং রয়েছে,যা বায়ু পরিবহনের রাস্তাকে রক্ষা করে।ট্রাকিয়ালিস পেশী এই অপূর্ণ রিংগুলিকে পূর্ণতা দেয় এবং কাশির সময় একে সংকুচিত করে বায়ু নির্গমনের গতি বৃদ্ধি করে।শ্বাসনালীর পিছনে অন্ননালী রয়েছে।ট্রাকিয়ার রিঙ্গগুলিকে অ্যানুলার লিগামেন্ট ধরে রাখে।এই রিংগুলি অপূর্ণ ,যাতে এর পিছনের অন্ননালী দিয়ে খাদ্য অতিক্রম করতে পারে।খাদ্য গলাধঃকরণের সময় আলজিহ্বা স্বরযন্ত্রের মুখকে ঢেকে শ্বাসনালীতে খাবার ঢুকতে বাঁধা দেয়।

কলাতত্ত্ব

ট্রাকিয়া গবলেট কোষ সহ সিউডোস্ট্র্যাটিফাইড কলামনার এপিথেলিয়াম দ্বারা আবৃত থাকে,যা মিউকাসের প্রধান উপাদান মিউসিন উৎপন্ন করে যা বায়ু পরিবহনের পথকে আর্দ্র রাখে ও সুরক্ষা দেয়।।[1] বিরক্তিকর কোন বস্তু ট্রাকিয়ায় ঢুকলে ঝিল্লির সূক্ষ্ম রোম কাশির উদ্রেক করে তা বাহিরে পাঠিয়ে দেয় এবং ট্রাকিয়া পরিষ্কার রাখে।

ক্লিনিক্যাল গুরুত্ব

প্রদাহ

ইনটিউবেশন

অন্যান্য

তথ্যসূত্র

  1. Mescher AL, "Chapter 17. The Respiratory System" (Chapter). Mescher AL: Junqueira's Basic Histology: Text & Atlas, 12e: http://www.accessmedicine.com/content.aspx?aID=6182422.
This article is issued from Wikipedia. The text is licensed under Creative Commons - Attribution - Sharealike. Additional terms may apply for the media files.